বাংলায় এনআরসি হতে দেবো না, রানাঘাটে সভায় হুঁশিয়ারি মুখ্যমন্ত্রীর

অপর্ণা দাস : সোমবার মতুয়া গড় রানাঘাটে সভায় কেন্দ্রের বিরুদ্ধে একের পর এক তোপ দেগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘বাংলায় এনআরসি, এনপিআর করব না। মা-মাটি-মানুষের সরকার মানুষের কাছে দায়বদ্ধ। মতুয়া, রাজবংশী-কামতাপুরী-নমঃশুদ্রদের জন্য বোর্ড করে দিয়েছি। সাঁওতালিভাষী, হিন্দিভাষীদের জন্য করা হয়েছে বোর্ড। ১০ কোটি টাকা দিয়েছি। আমি উদ্বাস্তুদের নিয়ে অনেক আন্দোলন করেছি। তাই বলেছি যেখানে আছেন, সে তেমন ভাবেই পাট্টা পাবেন। আমরা সবাই নাগরিক। কে কাড়বে নাগরিকত্ব। বিজেপি সরকার একটা বিল করেছে। বিলটা কী? আমার ঠাকুদার জন্মদিন কবে বলতে হবে। আজকালকার দিনে কার মনে থাকে এসব। এটা না বলতে পারলে তাদের ঘাড় ধাক্কা দিয়ে তাড়িয়ে দেওয়ার কথা ওরা বলছে। কিন্তু আমরা ওদের ঘাড় ধাক্কা দিয়ে তাড়িয়ে দেব। আমরা কৃষকদের সাথে রয়েছি। স্বাস্থ্যসাথীতে ১০০-এর মধ্যে ১০০টাকাই সরকার দেবে। আমি নিজেও স্বাস্থ্যসাথীর মেম্বার। অনেক হাসপাতাল আছে যারা স্বাস্থ্যকার্ড নিতে চায় না। মনে রাখবেন লাইসেন্স বাতিল করার ক্ষমতা সরকারের আছে। কেউ যদি (কোনও নার্সিংহোম) আপনাদের হেনস্থা করে, তা হলে একটা এফআইআর করবেন বাকিটা সরকার দেখে নেবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *