উত্তীর্ণদের শুভেচ্ছা জানালেন মোস্তাক হোসেন মাদ্রাসা মাধ্যমিকে সপ্তম স্থান অধিকারী সিমলা আক্তার নিলু 

2020-07-16    535

 


ফারুক আহমেদ :পিছিয়ে পড়া মুর্শিদাবাদ জেলার একদম সীমান্তবর্তী এলাকায় অবস্থিত আল আলাম মিশন। যার চেয়ারম্যান বাংলার বিশিষ্ট শিল্পপতি আলহাজ্ব মোস্তাক হোসেন। প্রতি বছরের মতো এই বছরেও মাদ্রাসা মাধ্যমিক বোর্ড পরীক্ষায় রাজ্যে সপ্তম স্থান অধিকার করেছে আল আলাম মিশনের ছাত্রী নিলুফা আকতার নিলু। প্রাপ্ত ৭৫৮ নম্বর নিয়ে মেধাতালিকায় জায়গায় করে নিল নিলুফা আকতার নিলু। সে খুব গরীব ঘরের মেয়ে হয়েও পড়াশোনা চমকপ্রদ ফল করে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিল। পিতা আব্দুল মাবুদ মন্ডল কৃষিকাজ করে সংসার যাপন করেন। বৃহস্পতিবার মাদ্রাসা মাধ্যমিক রেজাল্ট প্রকাশিত হওয়ার পরেই আল আলাম মিশনের কৃতি ছাত্র ছাত্রীদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বাংলার গর্ব বিশিষ্ট শিল্পপতি দানবীর আলহাজ্ব মোস্তাক হোসেন। পিছিয়ে পড়া মুর্শিদাবাদ জেলায় শিক্ষার আলো জ্বালছে এই মিশন। এ বছর মাদ্রাসা মাধ্যমিক পরিক্ষায় রাজ্যে সপ্তম এবং মিশনে প্রথম হয়েছে নিলুফা আকতার নিলু। এই সাফল্যে খুশি আল আলাম মিশনের ডিরেক্টর মাহবুব মুর্শিদ, সহ সম্পাদক আব্দুল বারী সহ সকল শিক্ষক শিক্ষিকা এবং ছাত্র-ছাত্রীরা। মাদ্রাসা মাধ্যমিক পরীক্ষায় আল আলাম মিশনের প্রথম দশজন কৃতি হলেন  - সিমলা আকতার নিলু, আনজিরুল হাসান, সেখ ইত্তেফাক আলম, গোলাম মোস্তফা, সাজিয়া ওয়াসিম, আইরিন নাজমিন, রাসেল আরনাল, মাসিকুল আলম, ইরফান হাবিব, মেহেবুব আলম।

এবছর আল আলাম মিশন থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী ছিলো ৩৪ জন। তাদের মধ্যে ছয় জন ৯০ এর ঘরে, চৌদ্দ জন ৮০ এর ঘরে, সাত জন ৭০ এর ঘরে, সাত জন ৬০ এর ঘরে থেকে উত্তীর্ণ হয়েছে৷ মোট ২৫ জন স্টার মার্কস এবং বাকী সবাই প্রথম বিভাগে উত্তীর্ণ হয়েছে। মিশনের ডিরেক্টর  মাহবুব মুর্শিদ জানিয়েছেন, প্রতি বছরই আমাদের ছাত্র ছাত্রীরা ভালো রেজাল্ট করে। এর আগের বছর গুলিতে মাদ্রাসা মাধ্যমিকে আমাদের মিশন রাজ্যে প্রথম, তৃতীয় , চতুর্থ এবং পঞ্চম স্থান অধিকার করেছে বহুবার। এই বছর মাদ্রাসা মাধ্যমিকে আমাদের যা সাফল্য এসেছে তাতে আমরা খুশি এবং আনন্দিত। মিশনের সম্পাদক জেলার বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ  প্রাক্তন প্রিন্সিপাল ড. মুজিবর রহমান এবং মিশনের সভাপতি প্রাক্তন পুলিশ অফিসার মসিউর রহমান সকল উত্তীর্ণদের অনেক অনেক শুভেচ্ছা এবং কুর্ণিশ জানিয়েছেন।

Advertisement

সর্বাধিক জনপ্রিয়